DEKHO BANGLA,BANKURA ||

DEKHO BANGLA,BANKURA

gongoni  scaled
jorambati
gongoni  scaled
gongoni  scaled jorambati gongoni  scaled
দীর্ঘদিন তো লকডাউন কাটালেন। কোভিড-১৯ ভীতি কাটিয়ে, উইকএন্ড এলেই মন উরু উরু? হাতে অল্প ছুটি? সাধ ও সাধ্যের মধ্যে বেড়ানোর জন্য অল্পচেনা গন্তব্য খুঁজছেন? একে ওকে ফোন অথবা নেট ঘেঁটে ঘ? তাই ঘুরে ফিরে সেই, দীপুদা? মানে, দীঘা-পুরী-দার্জিলিং? তাহলে যাবেন কোথায়? কে দেবে তার সন্ধান ?
সন্ধান দেবে দেখো বাংলা, বাংলার মনের আয়না
সোনার বাংলার আনাচে-কানাচে লুকিয়ে থাকা ঐতিহ্যের সন্ধান দেবে,, দেখো বাংলা। কলকাতা থেকে গাড়িতে দেখে নেব, চেনা বাংলার অল্পচেনা রূপ।
৩ রাত ৪ দিনে বাঁকুড়া- ঝিলিমিলি- জয়রামবাটি-কামারপুকুর
একদিকে যামিনী রায়, অন্যদিকে রামকিঙ্কর বেইজের জন্মেছেন এই মাটিতে। রাঢ় বাংলার স্থাপত্য, ভাস্কর্য, টেরাকোটার মন্দির আর মল্লরাজাদের বৈভবের পাশাপাশি শ্রীশ্রী রামকৃষ্ণ পরমহংসদেব ও মাতা সারদাদেবীর পুণ্যভূমির মাহাত্ম্য দেখতে চলে আসুন, বাঁকুড়া।
১ম দিন :- কলকাতা থেকে ভোরে গাড়ীতে চেপে বসুন,পথে শক্তিগড়ে ব্রেকফাস্ট। খড়গপুর হয়ে চলে আসব গড়বেতা। দেখে নেব বাংলা ব্র্যান্ড, ক্যানিয়ন গ্রান্ড, গনগনি। লালমাটি আর কাজুর জঙ্গল পেরিয়ে দেখে নেব দূরে শিলাবতী নদী আর অদ্ভুত ভূপ্রকৃতির ল্যাটেরাইট বা মাকড়া পাথর কিভাবে ক্ষয়প্রাপ্ত হয়ে নানান আকার ধারণ করে গনগনে আগুনের রঙ ধরেছে। এখানেই লাঞ্চ সেরে নিন। এখানকার অসাধারণ সূর্যাস্ত দেখে ফিরে আসব, বাঁকুড়া। এখানেই রাত্রিবাস। ডিনার।
২য় দিন :- ব্রেকফাস্ট সেরে চলে আসব জয়রামবাটি ও কামারপুকুর। বাঁকুড়া জেলার বিষ্ণুপুর মহকুমার কোতলপুর থানার অধীনে একটা ছোট্ট গ্রাম হল এই জয়রামবাটি। এই গ্রামেরই এক গরীব মুখোপাধ্যায় পরিবারে ১৮৫৩ সালের ২২শে ডিসেম্বর সারদাদেবী জন্মগ্রহণ করেছিলেন। ১৮৫৯ সালের মে মাসে মাত্র পাঁচ বছর বয়সে শ্রী শ্রী রামকৃষ্ণ পরমহংসদেবের সাথে তাঁর বিবাহ হয়। ১৯২০ সালের ২০শে জুলাই সারদা দেবী দেহত্যাগ করেছিলেন। বর্তমানে সারদাদেবীর বাসভবনটিও রামকৃষ্ণ মিশন ও মঠের অধীনে রয়েছে। তারা এই বাসভবনেই বিরাট একটা মাতৃমন্দির নির্মাণ করেছে। দেখে নিন মাতৃমন্দির, মায়ের পুরোনো বাড়ি, মায়ের নতুন বাড়ি, ধর্মঠাকুরের মন্দির, সিংহবাহিনী মন্দির| সিংহবাহিনী হল মা দুর্গার একটি রূপ এবং জয়রামবাটি গ্রামের দেবতা। মন্দিরটিতে সিংহবাহিনী, মহামায়া, চন্ডী ও মনসার ধাতব মুখ রয়েছে, কোনো সম্পূর্ণ মূর্তি নেই। মন্দিরে প্রসাদের ব্যবস্থা আছে।
গ্রীষ্মে ভোর ৪টে থেকে সকাল ১১ টা ও বিকেল ৪টে থেকে রাত সাড়ে ৮ টা ও শীতে ভোর সাড়ে ৪ টে থেকে ১১টা। আবার বিকেল সাড়ে ৩ টে থেকে রাত সাড়ে ৮ টা পর্যন্ত।
জয়রামবাটি থেকে কামারপুকুরের দূরত্ব মাত্র ৩ কিমি। অতীতের সেই সুখলালগঞ্জই বর্তমানের  কামারপুকুর। ১৮৩৬ সালের ১৮ই ফেব্রুয়ারী সুখলালগঞ্জে গদাধর নামে এক বালক জন্মগ্রহণ  করেন, তিনি শ্রী শ্রী রামকৃষ্ণ পরমহংসদেব। দেখে নিন, রামকৃষ্ণ মঠ, ঠাকুরের বাসভবন ঠাকুরের বাসগৃহটি অবিকৃত। ঠাকুরের একটা প্রতিকৃতিও রাখা আছে।
এছাড়াও এখানকার রঘুবীরের মন্দির, আম্রবৃক্ষ যুগিদের শিবমন্দির, হালদার পুকুর, লক্ষ্মীজলা, ঠাকুরের পাঠশালা, রামকৃষ্ণ পাঠশালা, লাহাদের চণ্ডীমণ্ডপ, লাহাদের বাড়ি, পার্বতীনাথ মন্দির, দামোদর বা বিষ্ণুমন্দির, পাইনবাড়ি, শান্তিনাথ শিবমন্দির, গোপীশ্বরের মন্দির, ধনীমাতার মন্দির, ভূতির খালের শ্মশান সহ আরও বেশকিছু দ্রষ্টব্যস্থানগুলি দেখে নিতে পারেন। ফেরার পথে কামারপুকুরের বিখ্যাত সাদা বোঁদের স্বাদ নিয়ে ফিরে আসব বাঁকুড়ায়।
৩য় দিন :- ব্রেকফাস্ট সেরে চলে আসব বাঁকুড়া, পুরুলিয়া ও পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার প্রান্তসীমায় ঝিলিমিলি। পথে দেখে নেব বাংলার মল্লরাজাদের প্রাচীন গড়। জয়পুর নামেই সকলে চেনেন। জঙ্গলাকীর্ণ এই স্থানে ডাকাতদের ডেরা ছিলো। মল্লরাজাদের প্রাচীন গড়ের ধ্বংসাবশেষ। আর কাছেই রয়েছে গোকুলচাঁদের মন্দির। মাকড়া পাথরের মন্দিরটি না দেখলে মিস করবেন। হাতে সময় রেখে, কালদা- গোকুলনগরের ঐতিহ্যময় মন্দিরগুলি দেখে নেব। মাঝে লাঞ্চ সেরে নেব।  প্রায় ৯৫ কিলোমিটার দূরে ঝিলিমিলি এক ছোট্ট পাহাড়ি জনপদ। সময় নেবে ২ ঘণ্টা ৩০ মিনিট। কৃষ্ণচূড়া, বট, আমলকী, কুসুম, শাল, সেগুনে ছাওয়া মনোরম বনাঞ্চল। সবুজ গাছপালায় ঘেরা জঙ্গল, পাহাড়, ছোট নদী আর ছোট–বড় ড্যাম। আজ এখানেই রাত্রিবাস। ডিনার।
৪র্থ দিন> ব্রেকফাস্ট সেরে চলে আসব ছান্দার। অতীতে মল্লরাজাদের রাজসভার কবিরা থাকতেন এই গ্রামে। এখানেই জন্মেছিলেন রামকিঙ্কর বেইজ। যামিনী রায় ও রামকিঙ্কর বেইজের শিল্পকর্মের ঐতিহ্য আর মাহাত্ম্য তুলে ধরবার জন্য লোকশিল্পের স্থায়ীমেলা ও মঞ্চ রয়েছে। ক্ষীরোদপ্রসাদ বিদ্যাবিনোদ মঞ্চ আর দুই বরেণ্যশিল্পীর সংগ্রহশালায় দেখে নিন, বাংলার এক অনবদ্য ঐতিহ্যকে। এবার ফেরার পালা|

DEKHO BANGLA  > Bankura – Jhilimili – Joyrambati – Kamarpukur

Famous for its sculptures, Terracotta temples, the kingdom of Mallarajas, birthplace of Jamini Ray and Ramkinkar Beij, Bankura showcases many historical sites.

 

Day 1 : Starting from Kolkata early morning , having breakfast at Shaktigarh, we will reach Garbeta via Kharagpur. Here we will see one of the famous tourist spot of Bengal, Gangani, which also known as the Grand Canyon of Bengal. Travelling through the forest of Cashewnuts and walking on red soil we will watch the Shilabati river cut throug the Laterite rocks sculpting them into amazing shapes. At rays of setting sun falls on these rocks to give them a fiery red colour which makes place look like the canyon on fire. After watching the sunset we will reach Bankura. Dinner and overnight stay at Bankura.

Day 2 : After breakfast we will visit Joyrambati and Kamarpukur. Situated in Bishnpur Sub-division of Bankura district, Joyrambati is a small village famous for being the birthplace of Maa Sarada Devi. She was born on 22 December 1853 and was married to Shri Shri Ramkrishna Paramhangshadeb in 1859 at the of 5years. At present her residence has been undertaken by Ramkrishna Mission, where a temple has been constructed in her memory. Visit the Matrimandir, old and new residence of Maa Sarada, Punnyipukur. Also visit Singhabahini temple where Singhabahini, the other form of Maa Durga is worshipped alongwith Mahamaya Chandi and Maa Manasaa.

Situated 3km from Joyrambati, also known as Sukhlalganj in the past, Kamarpukur is the birthplace of Shri Ramkrishna who was born here on 18February 1836. Visit the Ramkrishna Math, the residence of Shri Ramkrishna.

Also visit Raghubir Temple, Amravrikshya Yogi Shiv temple, Haldar Pukur, Lakshmijala, Ramkrishna Pathshala, Chandi Mandap, Lahas’ Residence, Parbatinath Temple, Damodar/Vishnu Temple, Painbari, Shantinath Shib Mandir, Gopishwar Temple, Dhanimata Temple, Bhuti Khal Crematorium and othe sight seeing spots. Enjoy the famous sweet of Kamarpukur – ‘Sada Bonde’ and return to Bankura.

Day 3 : After breakfast we will start for Jhilimili, situated 95kms away at the convergence of Bankura, Purulia and Paschim Medinipur District. Enclosed within Krishnachura, Banyan, Gooseberry, Kusum, Saal, Shegun forest and hillocks, Jhilimili was once ruled by the Mallarajas. Surrounded by forests, hills, narrow rivers and dams, it was a hiding place of dacoits in the past. Visit the remains of the Garh of the Mallarajas, Joypur forest, Gokulchand Temple and also the temples of Kalda-Gokulnagar region. Night stay at Jhilimili.

Day 4 : After breakfast we will reach Chhandar, the place of the famous poets of the Mallrajas’ kingdom. The birthplace of Jamini ray and Ramkinkar Beij, whose works have been showcased here in local museums and Kshirodprasad Bidyabinod Manch.

After lunch we will head towards Kolkata.

Where to Stay : Rimil Parjatak Nibas, Jhilimili. Ph : 03243-24030 / 09434202485

Related Stories

Discover

Tour Updates

আগের পোস্টেই জানিয়েছিলাম, খুব শিগগিরই আপনাদের নিয়ে যাবো হুগলির এক মন্দির সফরে। হ্যাঁ ভাই,দিনক্ষণ...

DEKHO BANGLA,DAWAIPANI

CLICK HERE READ THIS BLOG IN ENGLISH An enjoyable weekend trip in Dawaipani লকডাউন এখন আনলকের...

DEKHO BANGLA,MOUCHUKI ||

CLICK HERE READ THIS BLOG IN ENGLISH লগডাউন এখন আনলকের পথে। কোভিড-১৯ ভীতি কাটিয়ে, উইকএন্ড...

DEKHO BANGLA,SITTONG

CLICK HERE READ THIS BLOG IN ENGLISH An enjoyable weekend trip in Sittong   ৩ রাত ৪...

DEKHO BANGLA,TAKDAH-RAMPURIA ||

Click Here To Read This Article In English লগডাউন এখন আনলকের পথে। কোভিড-১৯ ভীতি কাটিয়ে,...

Popular Categories

Comments

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here